করোনা রোগীর জন্য

নাটোরে ৩০ টি অক্সিজেন সিলিন্ডার দিলেন পলক


নাটোর সংবাদদাতা:
সম্প্রতি করোনা আক্রান্ত রোগী বৃদ্ধি পাওয়ায় সদর হাসপাতালে অক্সিজেন সংকটের আশঙ্কা তৈরী হয়। এমন শঙ্কা দূর করতে নাটোরে ৩০ টি অক্সিজেন সিলিন্ডার দিলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। বৃহস্পতিবার দুপুরের কিছু আগে ওই সিলিন্ডারগুলো নাটোরে পৌছে। এগুলোর মধ্যে ২০ টি বড়(৭.৫ ঘনমিটার) আর ১০ টি ছোট(১.৪ ঘনমিটার)। বড় ২০ টি নাটোর সদর হাসপাতালে দেয়া হয়েছে। আর ছোট ১০ টি উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে দেয়া হবে।
সদর হাসপাতালের সহকারী পরিচালক পরিতোষ কুমার এবং সিভিল সার্জন ডাক্তার মিজানুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
সদর হাসপাতালের সহকারী পরিচালক পরিতোষ কুমার জানান, সদর হাসপাতালে করোনা রেগীর জন্য ৩১ টি শয্যা থাকলেও বর্তমানে ভর্তি রয়েছে ৪৩ রোগী। রোগীদের জন্য অক্সিজেন প্রয়োজন হয় দুই সেট তথা প্রয়োজনীয় সংখ্যার ডবল কেননা একসেট রিফিলে গেলে অপর সেট হাসওাতালে থাকবে। সে হিসেবে গত ৮ জুন রাতে অনুষ্ঠিত জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভায় যুক্ত হয়ে সদর হাসপাতালের অক্সিজেন পরিস্থিতি তুলে ধরেন তিনি।
এসময় পরিস্থিতি অনুধাবন করে নিজস্ব অর্থায়নে ৩০টি অক্সিজেন সিলিন্ডার ক্রয় করে দেওয়ার কথা জানান আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।
সে অনুযায়ী বৃহস্পতিবার অক্সিজেনসহ
৩০টি অক্সিজেন সিলিন্ডার নাটোর সদর হাসপাতালে এসে পৌছায়।

এসময় জেলা প্রশাসক মো: শাহরিয়াজ, সিভিল সার্জন ডা. কাজী মিজানুর রহমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তারেক যুবায়ের, সদর
হাসপাতালের আরএমও ডাঃ মনজুর রহমান সহ স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
এক প্রশ্নের জবাবে হাসপাতালের সহকারী পরিচালক পরিতোষ কুমার আরো বলেন, বড় ২০ টি সিলিন্ডার সদর হাসপাতালে রাখা হয়েছে। ছোট ১০ টি সিভিল সার্জন নিয়ে গেছেন।
বর্তমানে সদর হাসপাতালে ৫২ টি বড় এবং ১৭০ টি ছোট সাইজের অক্সিজেন সিলিন্ডার রয়েছে যা চলমান করোনা চিকিৎসার জন্য পর্যাপ্ত। সিভিল সার্জন ডাক্তার মিজানুর রহমান জানান, ছোট ১০ টি সিলিন্ডার বিভিন্ন উপজেলা স্বাস্থ্যকমপ্লেক্সে পাঠানো হবে।

শর্টলিংকঃ