নিম্নমানের ইট সামগ্রী

নলডাঙ্গায় গ্রামীন সড়ক উন্নয়নে

নলডাঙ্গা (নাটোর) প্রতিনিধিঃ নাটোরের নলডাঙ্গায় গ্রামীন সড়ক উন্নয়নে নি¤œমানের ইটের ব্যবহার করায় কাজ বন্ধ করে দিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান।রোববার বেলা ১১ টার দিকে উপজেলার বিপ্রবেলঘরিয়া ইউনিয়নের কাঁশবাড়িয়া ভাদুর বাড়ি হতে আঃ সালামের বাড়ি হয়ে সেন্টুর বাড়ি পযন্ত ১৫ লক্ষ টাকা ব্যায়ে ৪২৩ মিটার এচইবিবি করণ গ্রামীন সড়কে নি¤œমানের ইটের ব্যবহার করার অভিযোগ পেয়ে পরিদর্শনে গিয়ে কাজ বন্ধ করে দিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান আসাদ।

নলডাঙ্গা উপজেলা এলজিইডি কার্যালয় সূত্রে জানা যায়,২০২১-২০২২ অর্থ বছরের এডিপির অর্থয়ানে এলজিইডি বিভাগ গ্রামীন সড়ক উন্নয়ন প্রকল্পের আওয়াতায় দরপত্র আহবান করেন। উপজেলার বিপ্রবেলঘরিয়া ইউনিয়নের কাঁশবাড়িয়া ভাদুর বাড়ি হতে আঃ সালামের বাড়ি হয়ে সেন্টুর বাড়ি পযন্ত ১৫ লক্ষ টাকা ব্যায়ে ৪৫৬ মিটার এইচবিবি করণ গ্রামীন সড়ক উন্নয়নে কাজ পান ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান মের্সাস আশরাফ ট্রেডার্স প্রতিষ্ঠানের মালিক মাহাবুবুর রহমান তালুকদার।এ সড়কে সিডিউল অনুযায়ী কাজ না করে নি¤œমানের ২ ও ৩ নম্বর ইটের ব্যবহার করা হচ্ছে এমন অভিযোগ পেয়ে রোববার বেলা ১১ টার দিকে সরেজমিন পরিদর্শনে গিয়ে সত্যতা পেয়ে কাজ বন্ধ করে দেন উপজেলা চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান আসাদ।

ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান মের্সাস আশরাফ ট্রেডার্স প্রতিষ্ঠানের মালিক মাহাবুবুর রহমান তালুকদার বলেন,ভালো মানের ইটের সাথে ইট ভাটা থেকে কিছু নি¤œমানের ইট চলে আসে। এই নি¤œমানের ইট সরিয়ে দিয়ে সিডিউল অনুযায়ী ভালো মানের ইট এনে কাজ করা হবে।

উপজেলা চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান আসাদ বলেন,সিডিউল মোতাবেক এক নম্বর ইটের পরিবর্ততে দুই ও তিন নম্বর ইট ও বালুর ব্যবহার হচ্ছে।এমন অভিযোগ পেয়ে পরিদর্শনে গিয়ে এর সত্যতা পাওয়ায় কাজ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।সিডিউল মোতাবেক এক নম্বর ইটের ব্যবহার ও বালু এবং সড়কের কাটিং গভীরতা না হলে কাজ করতে দেওয়া হবে না।

উপজেলা এলজিইডির বিভাগের প্রকৌশলী দেলোয়ার হোসেন বলেন,এ প্রকল্পে গ্রামীন সড়ক উন্নয়নে নি¤œমানের ইট সামগ্রীর ব্যবহার হলে সেটা মেনে নেওয়া হবে না।সিডিউল মোতাবেক কাজ না করলে বিধিমোতাবেক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।আর উপজেলা কাজ বন্ধ করে দিয়েছে আমার জানা নাই।

 

শর্টলিংকঃ